শনিবার, ২৪শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

NewsFile Institute
Home / Big Picture Stories  / কাছাড়ে হঠাৎ পুলিশ সক্রিয়, করোনা পরিস্থিতি উদ্বেগজনক

কাছাড়ে হঠাৎ পুলিশ সক্রিয়, করোনা পরিস্থিতি উদ্বেগজনক

করোনা পরিস্থিতি দমন করতে রাজ্যে জারি করা হয় কার্ফু। কিন্তু বরাক উপত্যকার তিন জেলা কাছাড় করিমগঞ্জ এবং হাইলাকান্দিতে এর কোন প্রভাব পড়েনি।

শঙ্করী চৌধুরী
হাইলাকান্দি, জুন ১৬,

দুদিন আগেও সাধারণ মানুষ কোভিড প্রটোকল মানার ব্যাপারে কোনো উৎসাহ দেখান নি কিন্তু হঠাৎ পুলিশ সক্রিয় হতেই দক্ষিণ অসমের বরাক উপত্যকার শিলচর শহরে ত্রাস সৃষ্টি হয়। গত দুদিনে শিলচর শহরে করোনা কার্ফু ভঙ্গ এবং মাস্ক না পরার জন্যে পুলিশ ফাইন হিসেবে সংগ্রহ করেছে ১.২৫ লক্ষ টাকা। এরমধ্যে মাস্ক না পরার জন্যে ৬০,০০০ টাকা জরিমানাও রয়েছে।

মঙ্গলবার রাত থেকে এ পর্যন্ত জেলার বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৫০ জন কার্ফু না মানা লোককে আটক করা হয়। খোদ জেলাশাসক কীর্তি জল্লি এবং পুলিশ সুপার বৈভব চন্দ্রকান্ত নিম্বালকর অভিযানে নেমে কার্ফু অমান্যকারীদের আটক করেন বলে জানা গেছে। স্বাস্থ্য বিভাগের পক্ষ থেকে কাছাড় সহ রাজ্যের পাঁচ জেলায় কড়া নিষেধাজ্ঞা জারি হওয়ার পরই নড়েচড়ে বসে প্রশাসন।

এদিকে করোনা পরিস্থিতি দমন করতে রাজ্যে জারি করা হয় কার্ফু। কিন্তু বরাক উপত্যকার তিন জেলা কাছাড় করিমগঞ্জ এবং হাইলাকান্দিতে এর কোন প্রভাব পড়েনি। করোনা পরিস্থিতিকে নিয়ন্ত্রণ করতে আন্তঃজেলা যাতায়াত বন্ধ করা হলেও উপত্যকার তিন জেলায় অবাধে যানবাহন চলাচল করতে দেখা যায়। এমনকি কার্ফু চলাকালীন সময় অনেকেই রাস্তায় বেরিয়ে চলাফেরা করেন। তাছাড়া মোটর বাইক, গাড়ি এসব অবাধে চলাচল করলেও পুলিশকে ধরপাকড় করতে দেখা যায়নি। তবে এবার কাছাড় জেলায় কার্ফু অমান্যকারীদের আটক করায় সচেতন মহল খুশি।