শনিবার, ২৪শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

NewsFile Institute
Home / Big Picture Stories  / কোয়েম্বাতোরে তৈরি হল করোনা দেবীর মন্দির

কোয়েম্বাতোরে তৈরি হল করোনা দেবীর মন্দির

জো চলবে একটানা ৪৯ ঘন্টা। এরপর হবে বিশেষ আরাধনা।

মিঠুলাল চৌধুরী

করোনা মহামারী থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য ভারতবাসী চেষ্টার কোনও ত্রুটি রাখছেন না। সেই লক্ষ্যেই এবার তামিলনাড়ুর কোয়েম্বাতোরে স্থাপন করা হল করোনা দেবীর মন্দির। মহামারীর হাত থেকে বাঁচতে মন্দির তৈরি করে সেখানে করোনা দেবীর মূর্তি স্থাপনের পর শুরু হয়ে গেছে পূজো। কোয়েম্বাতুর শহর থেকে কিছুটা দূরে কামাতচিপুরম গ্রামে মন্দিরটি তৈরি হয়েছে । পূজো চলবে একটানা ৪৯ ঘন্টা। এরপর হবে বিশেষ আরাধনা। মন্দিরে স্থাপিত করোনা দেবীর মূর্তিটি গ্রানাইট পাথর দিয়ে তৈরি করা হয়েছে। দেড় ফুটের দেবীর পরনে লাল রঙের শাড়ি এবং একহাতে রয়েছে ত্রিশূল।


কিন্তু বর্তমানের এই লকডাউনের সময়ে যখন প্রত্যেক এলাকায় করোনা বিধি নিয়ে ব্যাপক কড়াকড়ি চলছে। তখন এই পূজোর আয়োজনে কি ভক্তরা যোগদান করতে পারছেন ? করোনা দেবীর পুজোর দায়িত্বে থাকা পুরোহিতদের বক্তব্য, বর্তমানে শুধুমাত্র পুরোহিত ও মন্দিরের দায়িত্বে থাকা ব্যক্তিদের ছাড়া আর কাউকে মন্দিরে প্রবেশ করতে দেওয়া হচ্ছে না। তবে দুর থেকে ভক্তরা প্রণাম করতে পারবেন। মন্দিরের ভেতরে সবাই সামাজিক দুরত্ব ও অন্যান্য করোনা বিধি অত্যন্ত কড়াকড়ি ভাবে পালন করছেন বলে পুরোহিতরা দাবি করেছেন। এবং করোনা দেবী তুষ্ট হলেই ভারতে করোনা সংক্রমণের ভয়াবহতা কমবে বলে তাঁদের বিশ্বাস।
প্রসঙ্গত , দক্ষিণ ভারতে এরকম মন্দির এই প্রথম নয়। কারণ , প্রায় ১০০ বছর আগে বিশ্ব তথা ভারতে যখন প্লেগ মহামারীর উদয় হয়েছিল এবং দেশের চারিদিকে মানুষের মৃত্যুমিছিল চলছিল। সেই সময় কোয়েম্বাটুরেই স্থাপন করা হয়েছিল প্লেগ মারিয়াম্মান দেবীর মন্দির।