বৃহস্পতিবার, ৫ই আগস্ট, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

NewsFile Institute
Home / Big Picture Stories  / স্বামীর গোপনাঙ্গ কাটলেন স্ত্রী, চাঞ্চল্য

স্বামীর গোপনাঙ্গ কাটলেন স্ত্রী, চাঞ্চল্য

ঘটনা লঙ্গাই পুলিশ ফাঁড়ির অধীনে থাকা এওলাবাড়ি শালেপুর গ্রামে ।

অরুপ রায়,
করিমগঞ্জ,

স্বামীর গোপনাঙ্গ কাটলেন স্ত্রী। এ নিয়ে সৃষ্টি হয়েছে ব্যাপক চাঞ্চল্য।
অবৈধ প্রেম, তারপর শারীরিক সম্পর্ক। প্রতিবাদ করলে নির্যাতনের শিকার। অবশেষে নিরুপায় হয়ে ব্লেড দিয়ে স্বামীর গোপনাঙ্গই কেটে দিলেন স্ত্রী । ঘটনাকে কেন্দ্র করে চাঞ্চল্য দেখা দিয়েছে দক্ষিণ অসমের করিমগঞ্জে।

ঘটনার বিবরণে প্রকাশ, পারিবারিক কলহের জের ধরে স্বামীর গোপনাঙ্গ ব্লেড দিয়ে কেটে দিলেন স্ত্রী । দ্রুত চিকিৎসা প্রদানের জন্য আহত স্বামীকে ভর্তি করানো হয়েছে করিমগঞ্জ সিভিল হাসপাতালে । সঙ্গে স্ত্রীকে অভিযুক্ত করে মামলা দায়ের করা হয়েছে করিমগঞ্জ সদর থানায় ।

ঘটনা লঙ্গাই পুলিশ ফাঁড়ির অধীনে থাকা এওলাবাড়ি শালেপুর গ্রামে । আহত স্বামীর নাম বুরহান উদ্দিন । বয়স আনুমানিক ত্রিশ বছর । অভিযোগকারী আহত বুরহান উদ্দিনের বয়ান মতে, তার স্ত্রী পরকীয়ায় লিপ্ত । যারজন্যে তাঁদের মধ্যে পারিবারিক কলহ লেগেই থাকতো । একাধিকবার বারণ করা সত্বেও তিনি তাঁর স্ত্রীকে শোধরাতে পারেননি। এই বিষয়টি থেকে কিছুদিন থেকে স্বামী স্ত্রীর মধ্যে পারিবারিক কলহের সৃষ্টি হয় এবং এজন্যে তিনদিন আগে দুজনের মধ্যে ঝগড়া হয় । আর এর প্রতিশোধ নিতে তার স্ত্রী আমিনা বেগম এবং তাঁর দিদি রত্না বেগম এই প্ল্যান করে বলে অভিযোগ । বুরহানের বক্তব্য মতে, সোমবার সকাল থেকে তিনি কিছুটা মাথা ব্যথায় ভুগছিলেন, দুপুরের দিকে স্ত্রীকে চা বানিয়ে দেওয়ার কথা বললে আমিনা বেগম চায়ের সঙ্গে নেশাজাতীয় দ্রব্য মিলিয়ে দিলে সঙ্গে সঙ্গেই তিনি ঘুমিয়ে পড়েন এবং এই সুযোগেই স্ত্রী আমিনা বেগম এবং রত্না বেগম ধারালো ব্লেড দিয়ে তাঁর গোপনাঙ্গ কেটে দেয । কিছুক্ষন পর তিনি টের পেয়ে চিৎকার করতে শুরু করলে পেছনের দরজা দিয়ে পালিয়ে যায় তার স্ত্রী ও বোন । প্রচুর রক্তক্ষরণ অবস্থায় আশেপাশের লোকেরা তাঁকে উদ্ধার করে নিয়ে যায় হাসপাতালে। বর্তমানে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন বুরহান।