মঙ্গলবার, ২৭শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

NewsFile Institute
Home / Top Stories  / কাছাড় ক্যান্সার হাসপাতালকে এম্বুলেন্স প্রদান

কাছাড় ক্যান্সার হাসপাতালকে এম্বুলেন্স প্রদান

শিলচর,: ,গভর্নমেন্ট ই মার্কেটিং পোর্টালের আওতায় এয়ারপোর্ট অথরিটি অব ইন্ডিয়ার শিলচর কার্যালয়ের সহযোগিতায় কাছাড় জেলা প্রশাসন বুধবার কাছাড় ক্যান্সার হসপিটাল অ্যান্ড রিসার্চ সেন্টারকে একটি এম্বুলেন্স প্রদান করেছে। সিএসআর কর্মসূচির আওতায় বিমান বন্দর কর্তৃপক্ষ এই এম্বুলেন্সটি

শিলচর,:

,
গভর্নমেন্ট ই মার্কেটিং পোর্টালের আওতায় এয়ারপোর্ট অথরিটি অব ইন্ডিয়ার শিলচর কার্যালয়ের সহযোগিতায় কাছাড় জেলা প্রশাসন বুধবার কাছাড় ক্যান্সার হসপিটাল অ্যান্ড রিসার্চ সেন্টারকে একটি এম্বুলেন্স প্রদান করেছে। সিএসআর কর্মসূচির আওতায় বিমান বন্দর কর্তৃপক্ষ এই এম্বুলেন্সটি দিতে এগিয়ে এসেছে।


এ উপলক্ষে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে জেলাশাসক কীর্তি জাল্লি বলেন”আজকের দিনটি একটি গুরুত্বপূর্ণ দিন, কারণ উন্নত চিকিৎসার জন্য কাছাড় ক্যান্সার হাসপাতালকে একটি এম্বুলেন্স দিতে এগিয়ে এসেছে বিমান বন্দর কর্তৃপক্ষ। জেলা প্রশাসন তাদের এই পদক্ষেপকে সাধুবাদ জানায় এবং এই প্রথমবার একটি জেলার পক্ষ থেকে স্বচ্ছতা নিশ্চিত করতে গভর্নমেন্ট ই মার্কেটিং পদ্ধতি গ্রহণ করা হয়েছে। তাছাড়া এর মাধ্যমে সেরা মূল্যমান নির্ধারণ করা হয়েছে। আর এটা সম্ভব হয়েছে কাছাড়ের ডিডিসি, এসপিও এবং ডিআইও-র জন্য। একইসঙ্গে এর মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর সুদূরপ্রসারী লক্ষ্য বাস্তবায়িত হয়েছে যে, যে কেউ যে কোনও স্থান থেকে কোনও কিছু সংগ্রহ করা এখন অনেক সহজ এবং বিমান বন্দর কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে আমরা তা করতে সমর্থ হয়েছি”।
তিনি গত ২৫ বছর ধরে এ অঞ্চলের মানুষের সেবায় নিয়োজিত থাকার জন্য কাছাড় ক্যান্সার হাসপাতালকে অভিনন্দন জানান।

অনুষ্ঠানে কাছাড় ক্যান্সার হাসপাতালের ডিরেক্টর ডাঃ রবি কান্নান বলেন “এই দিনটি সত্যিই এক বিশেষ দিন, কারণ আজই হাসপাতাল ২৫ বছর পূর্ণ করেছে। এই এম্বুলেন্সটি রোগীদের স্ক্রিনিং-এর কাজে ব্যবহার করা হবে, এমন একটি বাহন না থাকায় পরিষেবা দেওয়ার ক্ষেত্রে অসুবিধা হচ্ছে। এখন একটি এম্বুলেন্স হওয়ায় আরও সহজ, সুশৃঙখল ও কম ব্যয়ে পরিষেবা প্রদান করা সম্ভব হবে”।

এয়ারপোর্ট অথরিটির ডিরেক্টর পিকে গরাই বলেন ” এই প্রকল্পটি ২০১৯ সালের কিন্তু কাছাড় ক্যান্সার হাসপাতালকে এম্বুলেন্স প্রদানের মাধ্যমে আজ এটি বাস্তবায়িত হওয়ায় আমরা ভীষণ খুশি, মূলত আমাদের কাজ হচ্ছে যাত্রী চলাচলে স্বাচ্ছন্দ্য দেখা, কিন্তু আজকাল এয়ারপোর্ট অথরিটি সামাজিক কাজেও এগিয়ে এসেছে, এই পদক্ষেপকে বাস্তব রূপ দেওয়ার জন্য রিজিওনাল এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টর নানাভাবে সহায়তা করেছেন, সঙ্গে জেলা প্রশাসন এগিয়ে আসায় আমরা এই সুবিধা দিতে পেরেছি”।

এখানে উল্লেখ করা প্রাসঙ্গিক যে জেএম হ’ল ডিজিএস এবং ডি দ্বারা নিয়ন্ত্রিত করা সরকারি ই বিপণন পদ্ধতি, যেখানে সাধারণ ব্যবহারকারীর পণ্য ও পরিষেবাদি সংগ্রহ করা যায়। ইলেকট্রনিক্স এবং তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রকের আওতাধীন ন্যাশনাল ই গভর্ন্যান্স ডিভিশনের প্রযুক্তিগত সহায়তায় ডিজিএস এবং ডি পণ্য এবং পরিষেবা উভয়ই অনলাইনে সংগ্রহের জন্য গভর্নমেন্ট ই মার্কেটিং পোর্টালটির নকশা ও প্রস্তুত করেছে। সরকারি বিভিন্ন ক্রয়ে স্বচ্ছতা, দক্ষতা এবং গতি বাড়ানোই এর মূল লক্ষ্য।


এই সুবিধার পাশাপাশি সরকারি বিভাগগুলি গভর্নমেন্ট ই মার্কেটিং পোর্টালের অধীনে কম খরচে ক্রয়ের পাশাপাশি পরিষেবা এবং নিলামের সুবিধা নিতে পারে।
জেলাশাসক কীর্তি জাল্লি এই ই মার্কেটিং পোর্টালের মাধ্যমে বিভাগীয় প্রধানদের সুবিধাগুলি গ্রহণের পরামর্শ দেন। বিমান বন্দর কর্তৃপক্ষ অ্যাম্বুলেন্স সংগ্রহের জন্য কাছাড় ক্যান্সার হাসপাতালকে ১৪,৩৮,০৭০ টাকা আর্থিক সহায়তা দিয়েছে।